বিখ্যাত পঙক্তি ও বক্তা

আজকে বিভিন্ন পরীক্ষায় আশা গুরুত্বপূর্ণ বিখ্যাত পঙক্তি ও তাঁর বক্তা শেয়ার করবো। আশাকরি সবাই উপকৃত হবেন।

১। পাখি সব করে রব রাতি পোহাইল। – মদনমোহন তর্কালঙ্কার

২। সকালে উঠিয়া আমি মনে মনে বলি,সারা দিন আমি যেন ভাল হয়ে চলি।- মদনমোহন তর্কালঙ্কার

৩। স্বাধীনতা হীনতায় কে বাঁচিতে চায়? – রঙ্গলাল বন্দ্যোপাধ্যায়

৪। করিতে পারিনা কাজ / সদা ভয় সদা লাজ সংশয়ে সংকল্প সদা টলে / পাছে লোকে কিছু বলে।- কামিনী রায়

৫। পরের কারণে স্বার্থ দিয়া বলি/ এ জীবন মন সকলি দাও, তার মত সুখ কোথাও কি আছে? / আপনার কথা ভুলিয়া যাও। কামিনী রায়।

৬। আপনারে লয়ে বিব্রত রহিতে/ আসে নাই কেহ অবনী ‘ পরে, সকলের তরে সকলে আমরা / প্রত্যেকে আমরা পরের তরে। – কামিনী রায়

Read  বাংলা সাহিত্যের মধ্যযুগ-চাকরির প্রস্তুতি

৭৷ একটুখানি ভুলের তরে অনেক বিপদ ঘটে, ভুল করেছে যারা, সবাই ভুক্তভোগী বটে। – আবুল হোসেন মিয়া

৮। একটুখানি স্নেহের কথা, একটু ভালোবাসা গড়তে পারে এই দুনিয়ায় শান্তি সুখের বাসা। – আবুল হোসেন মিয়া

৯। বিদ্যে বোঝাই বাবু মশাই চড়ি শখের বোটে, মাঝিরে কন, বলতে পারিস সূর্যি কেন ওঠে। – সুকুমার রায়

১০। বাঁশবাগানের মাথার উপর চাঁদ উঠেছে ঐ মাগো আমার শোলক বলা কাজলা দিদি কই?- যতীন্দ্রমোহন বাগচী

১১। আমাদের দেশে হবে সেই ছেলে কবে কথায় না বড় হয়ে কাজে বড় হবে।- কুসুমকুমারী দাশ

১২। ভাত দে হারাম হারামজাদা, তা না হলে মান চিত্র খাবো। – রফিক আজাদ

১৩। আমার স্বপ্ন হোক ফসলের সুষম বণ্টন। – সমর সেন

Read  কোন ভিটামিন এর অভাবে কোন কোন রোগ হয় জেনে নিন।

১৪। এখানে যারা প্রাণ দিয়েছে / রমনার উর্দ্ধমুখী কৃষ্ণচূড়ার নীচে, সেখানে আমি কাঁদতে আসিনি। – মাহবুবুল আলম চৌধুরী

১৫। মার চোখে নেই অশ্রু কেবল / অনলজ্বালা, দু’ চোখে তাঁর হননের আহব। – মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান

Leave a Comment

You cannot copy content of this page